বেক্সিমকো পাওয়ারের শেয়ার কেনার ঘোষণায় বেক্সিমকোর বিক্রেতা উধাও

প্রথম রাজশাহী ডেস্ক :

বেক্সিমকো পাওয়ার লিমিটেডের তিন কোটি ৫০ লাখ শেয়ার কেনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত বাংলাদেশ এক্সপোর্ট ইমপোর্ট কোম্পানি (বেক্সিমকো) লিমিটেড।

বেক্সিমকো কর্তৃপক্ষের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে রোববার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) থেকে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এই বিনিয়োগের ঘোষণা আসায় এদিন শেয়ারবাজারে লেনদেন শুরুর কয়েক মিনিটের মধ্যে দাম বাড়ার সর্বোচ্চ সীমায় পৌঁছে গেছে বেক্সিমকোর শেয়ার। এরপরও বিনিয়োগকারীরা কোম্পানিটির শেয়ার বিক্রি করতে না চাওয়ায় বিক্রেতা উধাও হয়ে গেছে।

ডিএসই জানিয়েছে, বেক্সিমকো পাওয়ারের তিন কোটি ৫০ লাখ শেয়ার ৩৫ কোটি টাকা দিয়ে কিনবে বেক্সিমকো। এর ফলে পাওয়ার কোম্পানিটির ৭৫ শতাংশ শেয়ার বেক্সিমকোর দখলে চলে আসবে।

বেক্সিমকো পাওয়ারের বাকি ২৫ শতাংশ শেয়ার থাকবে এ এস এফ রহমান, সালমান এফ রহমান, নাজমুল হাসান এবং ও কে চৌধুরীর কাছে।

এই বিনিয়োগের সংবাদে রোববার লেনদেন শুরু হওয়ার ১০ মিনিটের মধ্যে কোম্পানিটির শেয়ার দাম বাড়ার সর্বোচ্চ সীমা স্পর্শ করেছে। এরপরও বিনিয়োগকারীদের একটি অংশ তাদের কাছে থাকা শেয়ার বিক্রি করতে চাচ্ছেন না। ফলে ক্রেতা থাকলেও বিক্রেতা এক প্রকার উধাও হয়ে গেছে।

এদিন লেনদেনের শুরুতে ৬১ টাকা ৮০ পয়সা করে বেক্সিমকোর ১০ হাজার ২০০ শেয়ার কেনার প্রস্তাব আসে। এ দামে বিনিয়োগকারীরা বিক্রি করতে রাজি না হওয়ায় কয়েক দফা দাম বেড়ে ৬২ টাকা ৭০ পয়সা করে তিন লাখ ৩৩ হাজার ৩০৬টি শেয়ার কেনার প্রস্তাব আসে।

এর মাধ্যমে দিনের দাম বাড়ার সর্বোচ্চ সীমা স্পর্শ করেছে কোম্পানিটির শেয়ার। এরপরও বিনিয়োগকারীদের একটি অংশ কোম্পানিটির শেয়ার বিক্রি করতে চাচ্ছেন না। ফলে ক্রেতা থাকলেও বিক্রেতার ঘর খালি পড়ে রয়েছে।

এদিকে বেক্সিমকোর শেয়ারের সাম্প্রতিক লেনদেন চিত্র পর্যালোচনা করে দেখা গেছে, গত ২৫ নভেম্বর থেকে কোম্পানিটির শেয়ার দাম টানা বাড়ছে। ২৫ নভেম্বর প্রতিটি শেয়ারের দাম ছিল ২২ টাকা, যা এখন বেড়ে ৬২ টাকায় উঠেছে। অর্থাৎ এক মাসেই কোম্পানিটির শেয়ার দাম বেড়ে তিনগুণ হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *